×
ভাইরাল

বিকৃত সুরে রবীন্দ্রসংগীত গেয়ে তুমুল কটাক্ষের মুখে হিরো আলম, রইল বিস্তারিত

বিজ্ঞাপন

বগুড়ার ছেলে আশরাফুল আলম যিনি সবচেয়ে বেশি পরিচিত হিরো আলম (Hero Alom) নামে। তাকে এই এক নামেই চেনে সকল মানুষ। ইউটিউবে নিজের মতো করে অভিনয়, প্রযোজনা ও গান পরিবেশন করে আজ নিজের পরিচিতি অতি সহজেই গড়ে তুলেছেন তিনি। তবে, কোন সুখ্যাতি নয় কিছুটা ব্যাঙ্গাত্মক অর্থেই জনপ্রিয় হয়ে উঠেছেন তিনি। যখন কোন কিছু গান বা অভিনয় তাকে পরিবেশন করতে দেখা যায় তখন সেটি হাসি ঠাট্টার ছলেই সবসময় দর্শকদের সামনে উপস্থাপন করেন তিনি। যা বেশ আনন্দের সঙ্গে উপভোগ করেন দর্শকেরা। কিন্তু এবারে যে ব্যাপারটি অন্যরকম হয়ে দাঁড়িয়েছে! হিরো আলমের প্রতি নিজেদের ক্ষোভ উগরে দিলেন দর্শকেরা। সকলের প্রাণের প্রিয় কবি রবি ঠাকুরের গানকে বিকৃত সুরে গেয়ে তীব্র কটাক্ষের শীকার হরেন হিরো।

বিজ্ঞাপন

‘আমারো পরান যাহা চায়’ বিখ্যাত রবি ঠাকুরের গাওয়া এই গানটি আজও প্রতিটি বাঙালির মনে প্রানে রয়ে গিয়েছে। কিন্তু, এই গানটিকে অজস্র বানান ভুল উচ্চরন এবং অত্যন্ত বেসুরেলা গলায় পরিবেশন করে চর্চায় উঠে এসেছেন তিনি। পরনে গোলাপি রঙের শার্ট, হাতে গিটার এবং গলায় বেসুরেলা কন্ঠ নিয়ে রবি ঠাকুরের গানটি গেয়ে অবমাননা করে চলেছেন তিনি। এককথায়, রবীন্দ্রসঙ্গীতে হিরোগিরি দেখাতে গিয়েই গানটির বারোটা বাজিয়ে দিয়েছেন হিরো অলম।

যদিওবা এর আগে, বহু গান গেয়েছেন হিরো আলম। এই যেমন, কিছুদিন আগেই কলকাতায় বিশ্ববাংলা গেট দুই পাশে দুই সুন্দরী যুবতীকে রেখে সাদা ঘোড়ায় চেপে ‘কলকাতার মাইয়া তুমি আমার লগে যাবা কি চাকায়’ গানটি গিয়েছিলেন তিনি। এমনকি ঈদের সময়ও ‘জানি তুই শুধু আমার’ নামক একটি মিউজিক ভিডিও পরিবেশন করেছিলেন তিনি। তবে, সেই গানগুলি নিয়ে দর্শকেরা এতদিন হাসি-ঠাট্টা করে আসলেও যারা রবীন্দ্রসঙ্গীতের ভক্ত তারা প্রত্যেকে এবারে হিরোর প্রতি ছি ছি করেছেন।

তবে, শুধুই রবীন্দ্র সংগীত প্রেমিরা নয়, বর্তমানে তাঁর বেসুরেলা গানের কারণে মারাত্মক বিরক্ত হচ্ছেন বাংলাদেশের একাংশ মানুষ। আর এবারের গান প্রসঙ্গে বাংলাদেশের বহু মানুষ সহ শ্রোতা ও দর্শকেরা বলেছেন- আপনি যদি রবীন্দ্র সংগীত শোনান তাহলে হিরো আলমের এই গান শুনে ভুলতে পারেন গানের আসল তাল, লয় ও ছন্দ। আর যাই হোক এখন যে, হিরো আলমের হিরোগিরি আর কেউই পছন্দ করছেন না তা স্পষ্টই বোঝা যাচ্ছে।

Related Articles