×
নিউজ

মাত্র ৯৯৯ টাকায় বাড়িতে আনুন এই ইলেকট্রিক বাইক! চালাতে পারবেন ড্রাইভিং লাইসেন্স ছাড়াই

বিজ্ঞাপন

বর্তমান যুগে কিছু কিছু পণ্যের মূল্য এমন হারে বাড়ছে, যা দেখে রীতিমতো মাথায় হাত পড়েছে সাধারণ মানুষের। বিশেষ করে, মানুষের এখন যোগাযোগের মাধ্যম ট্রেন, বাস থেকেও বেশি হয়েছে স্কুটার বা বাইক। সেইজন্যে পেট্রোল (Petrol) ডিজেলের (Diesel) সঙ্গে মানুষ ওতপ্রতোভাবে জড়িত হয়ে পড়ছে। কিন্তু পেট্রোল, ডিজেলের দাম যে হারে বাড়ছে তাতে রীতিমতো মাথায় হাত মধ্যবিত্তদের। আর মূল্যবৃদ্ধির কারণে সমগ্র বিশ্বে বৈদ্যুতিক গাড়ির (Electric Car) জনপ্রিয়তা ধীরে ধীরে বাড়ছে।

বিজ্ঞাপন

তাই এই আপডেটেড যুগে ভারতীয় বাজারেও বাড়ছে বৈদ্যুতিক গাড়ির বিক্রি। তবে কিন্তু পেট্রোল-ডিজেল চালিত গাড়ির তুলনায় এই গাড়ির দাম অধিক, সেই কারণেই মানুষ ইচ্ছা থাকলেও কিনতে পারছেন না এই গাড়ি। তাই তো বৈদ্যুতিক গাড়ির কমানোর দিকে নজর দিচ্ছে কেন্দ্রীয় সরকার (Central Govt)। যেহেতু ভারতে সিএনজি (CNG) পাম্পের সংখ্যা অত্যন্ত কম, সেই কারণে ইলেকট্রিক স্কুটি ও বাইকের চাহিদা উত্তরোত্তর বেড়েই চলেছে। আর মানুষের চাহিদার কথা মাথায় রেখে বিভিন্ন গাড়ির সংস্থা বাজারে একের পর এক ইলেকট্রিক বাইক লঞ্চ করেই চলেছেন।

আর এরই মাঝে হায়দ্রাবাদের নতুন এক স্টার্টআপ কোম্পানি অটোমোবাইল (ATUMOBILE), সম্প্রতি তাঁদের কোম্পানির একটি নতুন ইলেকট্রিক বাইক লঞ্চ করে রীতিমতো হইচই ফেলে দিয়েছে। কেননা এই বাইকটি আপনি একবার চার্জে দিয়েই পৌঁছতে পারেন ১০০ কিলোমিটার পথ। আর মাত্র সাড়ে তিন ঘন্টার চার্জে আপনার বিদ্যুৎ পুরবে মাত্র এক ইউনিট। যার বাজার মূল্য, মাত্র ৭ থেকে ১০ টাকা।

অত্যন্ত সাশ্রয়ী এই বাইকটির নাম, ATUM 1.0 এবং যার এখন বাজার মূল্য ৭৪,৯৯৯ টাকা। বুট স্পেইসযুক্ত এই বাইকে থাকছে ২ বছরের ওয়ারেন্টি এবং বাইকটির ব্যাটারিতে থাকছে ৩ বছরের ওয়ারেন্টি। এছাড়াও কোন রেজিস্ট্রেশন ও ড্রাইভিং লাইসেন্স ছাড়াই আপনি রাস্তায় এই ধরনের বাইক চালাতে পারেন। এছাড়া মাত্র ৯৯৯ টাকার বিনিময়ে এই বাইকটির প্রি-বুকিং করতে পারেন। তাই আর দেরি না করে এক্ষুনি আপনার নিকটবর্তী শোরুমে গিয়ে বুক করে ফেলুন ATUM 1.0!

Related Articles