×
নিউজ

ধুমধাম করে চর্চিত প্রেমিকা বৈশাখীর জন্মদিন পালন করলেন শোভন, রইল ছবি

বিজ্ঞাপন

বেশ ধুম ধাম করে বৈশাখী বন্দোপাধ্যায়ে (Baishakhi Bondyopadhyay) -র জন্ম দিন পালন করলেন শোভন চ্যাটার্জী (Sovan Chatterjee)। প্রতিটি অনুষ্ঠানেই এই বহুল চর্চিত জুটিকে দেখা যায় একসাথে পালন করতে। সেখানে যখন প্রেমিকার জন্মদিন; তখন উৎসবের মাত্রা দ্বিগুণ হবেই। এমন দীর্ঘ সময় ধরে জন্ম দিন পালন বাংলা আগে দেখেনি। তবে এই চমকের থেকে বড়ো চমক শোভন চ্যাটার্জী থেকে প্রাপ্ত উপহার। কী দিয়েছে জানেন?

বিজ্ঞাপন

এই সময়ের চর্চিত জুটি শোভন – বৈশাখী (Sovan-Baishakhi)। অনেক কটুকথা শুনেও এই প্রেমিক যুগল ছাড়েননি একে অপরের হাত। সব কিছু এক তুড়িতে উড়িয়ে দিয়ে ঢুব দিচ্ছেন প্রেমের সাগরে। দুজনকে একসাথে দেখা যায় ভিক্টোরিয়ার সামনে ঘোড়ার গাড়ি চড়ে ভ্রমন করতে আবার কখন রবীন্দ্র সঙ্গীত গাইতে। কিছু আগেই সপরিবারে কাশ্মীর থেকে ঘুরে এসেছেন শোভন – বৈশাখী। বৈশাখী বন্দোপাধ্যায় নেট মাধ্যমে শেয়ার করেছেন আউটিংয়ের ছবি। প্রায় সব সময় তাদের নিয়ে নেট দুনিয়ায় রঙ রসিকতাও থাকে তুঙ্গে। তবে প্রেমিক যুগল কিছুই তোয়াক্কা না করে ব্যস্ত আছেন নিজেদের নিয়ে। তাদের ভালোবাসার নিরস্বর্থকতা প্রকাশ পেলো বৈশাখীর জন্ম দিনে।

জন্ম দিনের আগের দিন রাত ১২ টা থেকে পরের দিন রাত ১২ টা অব্দি চলেছিলো জন্ম দিনের উৎসব। ২৪ এপ্রিল রাত ১২ টার সময় একপাশে চিরদিনের বন্ধু শোভন চ্যাটার্জী এবং অন্যদিকে প্রাণের চেয়ে প্রিয় মেয়েকে নিয়ে কেক কাটলেন বৈশাখী বন্দোপাধ্যায়। লক্ষ্য করা গেলো তিনজনের পোষাকের রঙ এক, গোলাপী। খুব সুন্দর করে সাজানো হয়েছিলো ঘর। এমনটাই ভাইরাল হত্তয়া ছবি গুলোতে দেখতে পাওয়া যাচ্ছে। তবে শোভন চ্যাটার্জী কী উপহার দিয়েছেন জানতে চাওয়ায় বৈশাখীর উত্তরে অবাক সকলে।

তাদের প্রেম নিয়ে ট্রোলিং হলেও বৈশাখীর উত্তর সবাইকে চুপ করিয়ে দিয়েছে। উপহারের প্রশ্নে বৈশাখী জানান ‘আমার অস্তিত্বটাই শোভনের দেওয়া’। এই উত্তরে বোঝাই যায় তাদের ভালোবাসা কতটা স্বচ্ছ। অন্যদিকে শোভন চ্যাটার্জীকে  জিজ্ঞেস করলে ,তিনি কী উপহার দিয়েছে জন্ম দিনে? শোভন বাবু জানান, “প্রেজেন্স ইজ দ্য প্রেজেন্ট। একে অপরের পাশে থাকা, এটাই আসল উপহার।” তেমন দামী উপহার না দিয়েও যে সব থেকে মূল্যবান উপহার দেওয়া যায় সেটাই প্রমাণ করলেন এই জুটি। এছাড়াও ডিভোর্সের পরের প্রথম জন্ম দিন বৈশাখীর,সেই জন্যে গোলপার্কের ফ্ল্যাটে জন্ম দিনের পার্টি আয়োজন করেছিলেন শোভন চ্যাটার্জী।

Related Articles