×
নিউজ

একি কাণ্ড! আবর্জনা হিসেবে ফেলতে যাওয়া পাথরের মধ্যে থেকে বেরোল ২০ কোটির হীরে, রইল বিস্তারিত

বিজ্ঞাপন

কথায় আছে, পাওয়ার সময় হলে ঈশ্বর দু হাত ভরে দেন। কথাটি এবং উপমা নয় বাস্তব। আমেরিকার এক মহিলা মূল্যহীন ভেবে ফেলে দিচ্ছিলেন যে পাথর, অবশেষে জানা গেলো সেটা হিরে। এই জন্যেই বলে কখন কী তোমার অবস্থা পাল্টে দিতে পারে তা স্বয়ং ঈশ্বর ছাড়া কেউ বলতে পারে না। আমেরিকান বৃদ্ধার তেমনি অবস্থা এই মুহূর্তে, একটি পাথর তাকে কোটিপতি বানিয়ে দিলো।

বিজ্ঞাপন

‘বিবিসি’ র প্রতিবেদন থেকে জানা যায় শাহনাজ নামক ৭০-৮০ বছরের একজন মহিলা নিজের ড্রেসের সাথে পরার জন্যে একটি পাথর কিনে ছিলেন।অনেক বিবেচনা করা পাথরটি কিনে ছিলেন। জানা যায় ‘বুস্ট সেল’ থেকে একটি গাড়ি এবং কিছু জিনিসের সাথে বহু বছর আগে পাথরটি কিনে ছিলেন। নর্থম্বারল্যান্ডে এই মহিলা বহু দিন ব্যবহার করেছেন করে ফেলার জন্যে কৃত্রিম পাথর ভেবে আবর্জনার সাথে ফেলে দিতেও চেয়েছিলেন। তবে নিজের এক প্রতিবেশীর জন্যে পারেননি।

জানা যায়, তিনি প্রথম দিকে মানতে না চাইলেও বারং বার প্রতিবেশীর কথায় বিরক্ত হয়েই গহনার দোকানে পাথরটির মূল্য জানতে গেছিলেন। তিনি নিজে বলেছেন প্রতিবেশী যখন পাথরটির মূল্য জানতে বলেছিলো তখন হাসি পেয়েছিলো। কারণ তিনি জানতেন পাথরটি কৃত্রিম ছিলো। তবে পাথরটি যে আসল হীরে এটি জানার পরে জ্ঞান হারান মহিলা।

বিবিসির সাথে কথা বলে নর্থ শিল্ডস ভিত্তিক ফেটনবিস নিলামকারী জানিয়েছেন। মহিলা বুদ্ধি করে তাদের কাছে দুটো আংটি নিয়ে এসেছিলেন। তারপরে শুধু এই পাথরটির দাম জিজ্ঞেস করেন। তারপরে তিনি জানতে পারেন এটি কোন সাধারণ পাথর নয় এটি একটি হীরে। ভারতীয় মূল্যে এই হীরের দাম প্রায় ২০ কোটি টাকা। আশা করা যায় হীরের জন্যে মহিলার পরবর্তী সময় খুব ভালো কাটবে।

Related Articles