×
বিনোদন

অবশেষে আবারও ছেলের মুখে বাবা ডাক শুনল সমরেশ, টিপুর পরিবর্তনে আপ্লুত পরিবারের সকলে

বিজ্ঞাপন

এত খারাপের মাঝে এলো খুশির খবর। সন্তানের মুখে বাবা ডাকটা শোনা আর সন্তানেরও বাবা বলে ডাকতে পারাটা একটা ভাগ্যের ব্যাপার। তার যে আনন্দ সেটাই ফুটে উঠলো সমরেশের জীবনে। শুধু সমরেশ নয়, বাড়ির সকলেই বেশ খুশি হয়েছে তার সাথে। সকলের চোখেই আনন্দের, প্রাপ্তির জল। আসুন জেনে নেওয়া যাক এমন কী হলো সেনগুপ্ত বাড়িতে! আপনাদের জন্যে রইলো আনন্দের মুহূর্তের ভিডিও।

বিজ্ঞাপন

স্টার জলসার ‘আয় তবে সহচরী’ (Aay Tobe Sohochori) সিরিয়ালের গল্পের প্লট সব থেকে আলাদা। এখানে বাড়ির মেয়ে বউদের জীবনে পড়াশোনা কতটা গুরুত্তপূর্ণ সেটা যেমন তুলে ধরা হয়েছে তেমন ভাবেই তুলে ধরা হয়েছে শিক্ষার জন্যে নির্দিষ্ট কোনো বয়স হয় না। কেবল ইচ্ছে আর মনের জোর লাগে। এর সাথে এই সিরিয়ালে শাশুড়ি বৌমার একটি সুন্দর বন্ধুত্ব সুলভ দিক তুলে ধরা হয়েছে। এক কথায় বলতে গেলে পুরুষ তান্ত্রিক সমাজের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের এক গল্পঃ।

বর্তমানে আমরা দেখেছি পরীক্ষার খাতায় সব প্রশ্নের উত্তর লিখলেও খাতা জমা দেওয়ার সময় সাদা খাতা জমা দিয়েছে সই। সেই রহস্য সমাধান করতে ব্যস্ত বরফি। অবশেষে খুঁজে পায় সমরেশের দেওয়া পেনটা বদলে গেছে একই রকম পেনের সাথে। এরপরে খুঁজতে খুঁজতে নতুন পেন এবং ভেনিস কালির খোঁজ পাওয়া যায় দেবীনার ঘর থেকে। এবার তাকেই কলেজে গিয়ে সবটা বলতে হবে।

এরমধ্যে সোশ্যাল মিডিয়ায় বেশ ভাইরাল হচ্ছে সিরিয়ালের এক ভিডিও। যেখানে দেখতে পাওয়া যাচ্ছে বরফি আনন্দে নাচছে। তাকে দেখে সমরেশ খুব খুশি। এমন সময় বরফি বলে, তোমার ছেলে তোমাকে কিছু বলতে চায়। সমরেশ টিপুকে জিঞ্জেস করল উত্তর পায়, ‘না ‘বাবা’ তেমন কিছু না’। এই ডাক শুনে সমরেশ সহ বাড়ির সবাই খুশি হয়ে যায়। কারণ টিপু বহু সময় ধরে নিজের বাবাকে মিস্টার সেনগুপ্ত বলে ডাকত।

Related Articles