×
বিনোদন

‘ইস্মার্ট জোড়ি’তে রান্নার রণক্ষেত্র! কে হবে সেরা জোড়ি? রইল ভিডিও

বিজ্ঞাপন

কিচেন থেকে কুকুড়ুকু আওয়াজ আসছে শুনতে পাওয়া যাচ্ছে। দেখুন হয়তো ভোজহরি মান্না কেউ হতে পারবেন না। তবে সকলকে রান্না করে উপার্জন করতে হবে টাকা। না হলেই সেরা হওয়ার লড়াই থেকে পড়তে হবে বাদ। ‘ইস্মার্ট জোড়ি’র প্রোমো দেখে দর্শকদের চোখ কপালে ওঠার জোগাড়। যে অভিনেতা – অভিনেত্রী, গায়ককে তারা এত দিন টিভির স্ক্রিন থেকে স্টেজ সকলকে মাতিয়ে রাখতে দেখেছেন; এবারে তাদের দেখতে পাবেন খুন্তি – ছান্তা হাতে। দেখে নিন প্রোমো ভিডিওটি।

বিজ্ঞাপন

‘ইস্মার্ট জোড়ি’ শো জিততে কত কিছুই করতে হচ্ছে সেলিব্রিটি প্রতিযোগীদের। তবে এবারের কাজ একদম অন্যতম আর তাক লাগানোর মতো। শহুরে মানুষজন হয়ে গ্রাম বাংলায় দিন কাটিয়েছে। সেখানে গ্রাম বাংলার জীবিকাকে রপ্ত করে উপার্জন করেছে বা তাদের সাহায্য করেছে। কিন্তু এখন সোশ্যাল মিডিয়ায় আগামী পর্বের ভিডিও দেখে চমকে গেছে নেটিজেনরা। সকলের ধারণা এমন কিছু তারা কেউই দেখতে পাননি কোন রিয়ালিটি শোতে।

সুপারস্টার জিৎ পরিচালিত রিয়ালিটি শো ‘ইস্মার্ট জোড়ি’ তার শেষ পর্যায় পৌঁছে গেছে। সেই জন্যেই লড়াই হয়ে উঠেছে হাড্ডাহাড্ডি। গ্রাম বাংলা থেকে সেলেব জুটিরা পৌঁছে গেছে রেস্টুরেন্টের বেস কিচেনে। এমন প্রতিযোগিতা ভাবাই যায় না। যে সেলেব নিজের ত্বকের যত্নের জন্য গ্যাসের সামনে যেতে ভয় পায় তারা এখন বড়ো বড়ো দেচকা এবং উনুনে কাজ করছে। আবার তারাই ওয়েটার সেজে করছে খাবার পরিবেশন।

প্রোমোতে দেখতে পাওয়া যাচ্ছে কেউ বানাচ্ছে নান, কেউ বানাচ্ছে চিকেন তন্দুরি। এক জুটি মিলে বড়ো দেচকায় যেমন খুন্তি দিয়ে করছে রান্না। তেমন অন্য এক জুটি শিকের মধ্যে ম্যারিনেট করে রাখা চিকেন গেঁথে উনুনে তৈরি হতে দিচ্ছে তন্দুরি চিকেন। অন্যদিকে ময়দা মেখে বানিয়ে ফেলেছেন নান আর পরোটা। তারপরে নিজেরাই গিয়ে পরিবেশন করছে রেস্টুরেন্টে খেতে আসা মানুষ জনকে। তার বদলে পাচ্ছেন টাকা।

Related Articles