×
বিনোদন

ঋদ্ধিকে বিশ্বাস করে খড়ি, স্ত্রীর কর্তব্য পালন করে স্বামীর পাশে থাকবে সে

বিজ্ঞাপন

খড়ি-ঋদ্ধি প্রেম জমে উঠেছে। বিপদ যেন তাঁদের পেছন ছাড়েনা। এবার ঋদ্ধির মাথায় বিপদের কড়া নাড়ছে। আর স্বামী এই বিপদে খড়ি সবসময় তাঁর পাশে থাকার প্রতিজ্ঞা করলেন। জমে উঠেছে খড়ি-ঋদ্ধির প্রেমকাহিনী। সঙ্গে স্টার জলসার ‘গাঁটছড়া’ (Gantchhora) ধারাবাহিকও টিআরপিতে নিজেদের জায়গা ফেরাতে প্রাণপণ চেষ্টা চালাচ্ছেন। কারণ গতসপ্তাহে টিআরপির রেটিং খানিকটা কমেছে ‘গাঁটছড়া’ ধারাবাহিকের। তাহলে কি, খড়ি-ঋদ্ধির জমানো প্রেম কাহিনী মাত করতে পারছে না সিরিয়ালপ্রেমীদের। না মোটেও নয়।

বিজ্ঞাপন

বরং তাঁদের কেমিস্ট্রিতে এক্কেবারে বুঁদ দর্শক। বউকে রীতি মতোন চোখে হারান ঋদ্ধিমান। তেমনি বউ খড়ির মনও আস্তে আস্তে গলছে। আর তা সম্ভব হয়েছে মুলত নিজেদের উপর অফুরন্ত বিশ্বাস এবং ভরসার জোরেই। খড়িকে যখন মিথ্যে গয়না চুরির অপবাদ দিয়ে থানায় ধরে নিয়ে গেল তখন ঢাল হয়ে খড়ির পাশে দাঁড়িয়ে ছিলেন ঋদ্ধি। সেই কারণেই স্বামীর উপর তাঁর মনের জোর আরো বেড়ে গিয়েছে। খড়ির ওপর দিয়ে এই ঝড় মিটতে না মিটতেই এবার আরেকটি ষড়যন্ত্রের শিকার হলেন ঋদ্ধিমান।

ব্যাপারটা হল, খড়ির মা, তাঁর দিদি দ্যুতির বড় লোকের বাড়ি বিয়ে দেওয়ার জন্যে কাউকে না জানিয়েই খড়ির পৈত্রিক বাড়ি বন্দক দেন। কিন্তু দ্যুতির বিয়ে তো হয়ই না, বরং খড়িরই বিয়ে হয়ে যায় বড়লোক বাড়িতে। এরপরে ঘটে যায় নানা কান্ড। দ্যুতি-রাহুলের বিয়ে হয়, খড়ি শ্বশুরবাড়ি থেকে ফিরে আসেন বাপের বাড়িতে এবং তাঁর দশকর্মার দোকান নতুন করে গড়ে তোলেন। কিন্তু সেটাই রাহুল এসে সব চুরমার করে দেয়। অগত্যা খড়ির মা আর তারা বাড়ির বন্দকের টাকা পরিশোধ করতে পারেনা। ঠিক সেই সময়েই দেবদূতের মতন এসে ঋদ্ধিমান সেই টাকা ফেরত দেন এবং তাঁদের বাড়িটি কিনে নেন।

কিন্তু এতেই রয়েছে টুইস্ট। কারণ ঋদ্ধিমান যে বাড়িটি কিনেছেন তার দলিল চুরি করে তাতে ঋদ্ধির নোলক সই করে বাড়িটা এক প্রোমোটারকে বেঁচে দেয় রাহুল। পরে, জামাইষষ্ঠীর দিন সেই প্রোমোটার এসে বাড়ি খালি করতে বলেন এবং জানান ঋদ্ধিমান সিংহ রায় বাড়িটি তাকে বিক্রি করেছেন ৬ কোটি টাকার বিনিময়ে। এই কথাটা শুনে খড়ি লজ্জায় ফিরে আসেন শ্বশুরবাড়ি। তখন ঋদ্ধিমান, খড়িকে নানাভাবে বোঝাতে থাকেন যে, তিনি কিছু করেন নি, তাঁকে ফাঁসানো হয়েছে। এরপর খড়ি বলেন, আপনি যেমন আমার পাশে রয়েছেন আমিও আপনার পাশে আছি এবং আপনাকে ভরসা করি। কিন্তু আপনি যে নির্দোষ সেটা আপনাকেই প্রমাণ করতে হবে। আর এই যুদ্ধে আমি আপনার সঙ্গে আছি।

Related Articles